অন্তঃসত্ত্বা স্ত্রীর মাথা ন্যাড়া করে দিলেন স্বামী

সারাবাংলা

নিজস্ব প্রতিবেদক:
ময়মনসিংহের তারাকান্দায় যৌতুন না পেয়ে কাকলী আক্তার (২০) নামে এক অন্তঃসত্ত্বা গৃহবধূর মাথা ন্যাড়া করে দিয়েছেন স্বামী শাহ পরান (২৫)। কাকলী আক্তার উপজেলার কামারগাঁও ইউনিয়নের হরিয়াতলা গ্রামের মৃত আবুল বাশারের মেয়ে। শাহ পরান একই উপজেলার প্রজাবতখিলা গ্রামের হক মিয়ার ছেলে।
এ ঘটনায় কাকলী আক্তার বৃহস্পতিবার (৪ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে তারাকান্দা থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন।
তারাকান্দা থানার ওসি আবুল খায়ের ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। অভিযোগের বরাত দিয়ে তিনি বলেন, ‘প্রায় ১০ মাস আগে পারিবারিকভাবে বিয়ে হয় তাদের। বিয়ের তিন মাস পর গর্ভবতী হন কাকলি আক্তার। এরপর থেকে যৌতুকের জন্য তার ওপর নির্যাতন শুরু হয়। এ বস্থায় গত ২৯ জানুয়ারি সন্তান নষ্ট করার জন্য তাকে ডাক্তারের কাছে নিয়ে যান শাহ পরান। কাকলী সন্তান নষ্ট করতে রাজি না হওয়ায় বাড়িতে তার ওপর শারীরিক নির্যাতন শুরু হয়। এক পর্যায়ে কাকলীর মাথার চুল কেটে দেন শাহ পরান।’
‘মাথা ন্যাড়া করার পর বাড়িতে তিনদিন আটকে রাখেন তাকে। তিনদিন আটক থাকার পর সুযোগ পেয়ে কাকলি পালিয়ে তার বাবার বাড়ি চলে যান। এরপর পরিবারের লোকজনকে নিয়ে বৃহস্পতিবার বিকেলে থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।
ওসি আরও বলেন, ‘অভিযোগ দেয়ার পর পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। এ ঘটনায় এখনো কাউকে আটক করা সম্ভব হয়নি। তবে, জানতে পেরেছি দুই পক্ষই বিষয়টি মীমাংসা করার চেষ্টা করছে।

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *