অ্যাটলেটিকোর থমাস-সুয়ারেজের গোলে বার্সার হার

খেলাধুলা

ডেস্ক রিপোর্ট: ছোটখাট দলের কাছে দিব্যি হেরে যাচ্ছে, সেখানে অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদের বিপক্ষে বার্সেলোনা জিততে পারবে, সে আশা করা ছিল বাতুলতা মাত্র। ধারণার মতই হয়েছে ম্যাচের ফল। অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদের মাঠে গিয়ে ২-০ গোলে হেরে এসেছে বার্সেলোনা। অ্যাটলেটিকোর হয়ে গোল দুটি করেছেন থমাস লেমার এবং লুইস সুয়ারেজ।

লুইস সুয়ারেজ শুধু একটি গোলই করেননি। অন্য গোলটি করিয়েছেন। থমাস লেমার ২৩ মিনিটে প্রথম যে গোলটি করেন, সেটার যোগানদাতা ছিলেন সুয়ারেজই। মূলতঃ একা এক লুইস সুয়ারেজের কাছেই হারতে হয়েছে বার্সাকে। সুয়ারেজের এই দুই গোল নিশ্চিতভাবেই রোনাল্ড কোম্যানের ওপর আরও বেশি চাপ তৈরি করেছে।

ম্যাচের ২৩তম মিনিটে ফরাসী তারকা থমাস লেমারকে গোলের জন্য বল তৈরি করে দেন লুইস সুয়ারেজ। এরপর ক্লাবের হয়ে জয়সূচক গোলটিও করেন তিনি। যদিও গোল করার পর কোনো উদযাপনই দেখা যায়নি সুয়ারেজের কাছ থেকে।

ম্যাচের পর এ নিয়ে তিনি বলেন, ‘আমি জানতাম বিষয়টা সম্পর্কে। উদযাপন করিনি কেবলমাত্র সম্মান এবং ভালোবাসা থেকে। একজন বার্সা সমর্থক হিসেবে, বার্সায় যে সময়টা আমি অতিবাহিত করেছি, আমার সাবেক সতীর্থদের সঙ্গে গোল উদযাপন করার যে স্মৃতি রয়েছে এমনকি সমর্থকদের সঙ্গেও, সে কারণেই আমি নিজে তাদের বিপক্ষে গোল করে উদযাপন করাটা খুবই কঠিন।‘

তবে উদযাপন না করলেও গোল করার পর ফোন করার ভঙ্গি করে হাতটা মুখের কাছে নেন। এটা যে বিশেষ কোনো ইঙ্গিত ছিল তা বুঝতে কারো বাকি ছিল না। এ নিয়ে ম্যাচের পর জিজ্ঞাসা করা হলে সুয়ারেজ বলেন, ‘মানুষ জানুক যে, আমার ঠিক একই নাম্বার রয়েছে এবং এখনও আমি সেই একই টেলিফোন ব্যবহার করি।‘ সুয়ারেজ কী বোঝাতে চেয়েছেন, তা সবাই এ কথায় বুঝে গেছে।

ইঙ্গিতটা ছিল পুরোপুরি বার্সা কোচ রোনাল্ড কোম্যানের উদ্দেশ্যে। এ নিয়ে সরাসরি সুয়ারেজকে জিজ্ঞাসা করা হয় যে আপনি কী কোম্যানকে উদ্দেশ্য করে কিছু বলেছেন? জবাবে সুয়ারেজ বলেন, ‘না না না, এমন কিছুই না। যদি তিনি এটাকে ব্যক্তিগতভাবে নেন, তাহলে …., না। আমি মূলতঃ বাসায় আমার বাচ্চাদের সঙ্গেও মজা করে এমন করে থাকি।‘

এই জয়ে দ্বিতীয় স্থানে উঠে এলো অ্যাটলেটিকো মাদ্রিদ। ৮ ম্যাচে অ্যাটলেটিকোর পয়েন্ট ১৭। ৭ ম্যাচে সমান পয়েন্ট নিয়ে গোল ব্যবধানে শীর্ষে রয়েছে রিয়াল মাদ্রিদ।

একের পর এক হারের কারণে রোনাল্ড কোম্যানের বার্সা কোচের পদ থেকে যে কোনো সময় বরখাস্ত হওয়ার শঙ্কা তৈরি হয়। কিন্তু অ্যাটলেটিকোর বিপক্ষে ম্যাচ শুরুর আগে হঠাৎ করেই বার্সা সভাপতি হুয়ান লাপোর্তা ঘোষণা দেন, কোচের পদে কোম্যানই থাকছেন। কোনো পরিবর্তন আনা হবে না।‘

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *