করোনায় আরও ৩১ জনের মৃত্যু, আক্রান্ত ১৬৬৬

জাতীয়

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে গত ২৪ ঘণ্টায় সারাদেশে আরও ৩১ জনের মৃত্যু হয়েছে। এর মধ্যে পুরুষ ২৪ ও নারী সাতজন। হাসপাতালে ৩০ জন এবং বাড়িতে একজন মারা যান। এ নিয়ে করোনায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৬ হাজার ৮৩৮ জনে দাঁড়াল।

রবিবার (৬ ডিসেম্বর) বিকেলে স্বাস্থ্য অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

এ সময়ে নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন এক হাজার ৬৬৬ জন। সব মিলিয়ে আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে চার লাখ ৭৭ হাজার ৫৪৫ জনে। এছাড়া ঢাকা সিটিসহ দেশের বিভিন্ন হাসপাতালে ও বাড়িতে উপসর্গ বিহীন রোগীসহ গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন দুই হাজার ৫৫২ জন। এ পর্যন্ত মোট সুস্থ হয়েছেন তিন লাখ ৯৫ হাজার ৯৬০ জন। সারাদেশে সরকারি ও বেসরকারি ব্যবস্থাপনায় ১৩৭টি ল্যাবে নমুনা সংগ্রহ ও পরীক্ষা হয়েছে। এর মধ্যে আরটি-পিসিআর ল্যাব ১১২টি, জিন-এক্সপার্ট ১৫টি, র‌্যাপিড অ্যান্টিজেন ১০টি। এসব ল্যাবে গত ২৪ ঘণ্টায় নমুনা সংগ্রহ হয়েছে ১৩ হাজার ৩৩৭টি। মোট নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ১৩ হাজার ২১৮টি। এ পর্যন্ত নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ২৮ লাখ ৬৩ হাজার ১৬৯টি।

বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, গত ২৪ ঘণ্টায় নমুনা পরীক্ষার হার ১২ দশমিক ৬০ শতাংশ। এ পর্যন্ত নমুনা পরীক্ষা বিবেচনায় শনাক্তের হার ১৬ দশমিক ৬৮ শতাংশ এবং শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৮২ দশমিক ৯২ এবং শনাক্ত বিবেচনায় মৃত্যুর হার এক দশমিক ৪৩ শতাংশ।

বিজ্ঞপ্তিতে নাসিমা সুলতানা জানান, ২৪ ঘণ্টায় মৃত ৩১ জনের মধ্যে ২৪ জন পুরুষ ও নারী সাত জন। এদের মধ্যে রয়েছেন ঢাকা বিভাগে ১৮ জন, চট্টগ্রাম বিভাগে তিন জন। বরিশাল, সিলেট, রংপুর ও ময়মনসিংহ বিভাগে দুই জন করে আট জন। এছাড়া রাজশাহী ও খুলনা বিভাগে এক জন করে দুই জন রয়েছেন। এদের মধ্যে হাসপাতালেই মারা গেছেন ৩০ জন। আর বাড়িতে এক জন। মৃতদের বয়স বিশ্লেষণে দেখা যায়, ৬০ বছরের ঊর্ধ্বে ২১ জন, ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে চার জন, ৪১ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে পাঁচ জন, ২১ থেকে ৩০ বছরের মধ্যে এক জন রয়েছেন।

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *