কালকিনিতে কলেজছাত্রের মৃত্যু

সারাবাংলা

কালকিনি (মাদারীপুর) প্রতিনিধি : সমুদ্র সৈকতের চোরা বালুতে আটকে এবং জলের ঢেউয়ের আঘাতে গুরুতর আহত হয়ে মাদারীপুর জেলার কালকিনি উপজেলার মো. নাহিদ মুন্সি (২১) নামে এক মেধাবী কলেজছাত্রের মৃত্যু হয়েছে। নিহত নাহিদ মুন্সি উপজেলার সাহেবরামপুর এলাকার দক্ষিণ সাহেবরামপুর গ্রামের মো. বাদুল মুন্সির ছোট ছেলে ও কালকিনি সৈয়দ আবুল হোসেন কলেজের অর্নাসের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র। গতকাল শুক্রবার দুপুরে ঢাকার বঙ্গবন্ধু মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।
পুলিশ ও নিহতের চাচাতো ভাই এআর আহম্মেদ জানান, কলেজছাত্র নাহিদ মুন্সি সম্প্রতি তার বন্ধুদের সাথে সমুদ্র সৈকত পটুয়াখালী জেলার কুয়াকাটায় আনন্দ ভ্রমণে ঘুরতে যান। সেখানে তিনি বন্ধুদের সাথে সমুদ্রে গোসল করতে গিয়ে চোরা বালুতে হঠাৎ করে পাঁ আটকে এবং পানির ঢেউয়ে প্রচন্ড আঘাত প্রাপ্ত হন। এ বিষটি দেখে তার সকল বন্ধুরা মিলে তাকে গুরুতর আহত অবস্থায় উদ্ধার করেন। পরে তাকে ঢাকার বঙ্গবন্ধু মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানে তিনি চিকিৎধীন অবস্থায় মারা যান। তার এ অকাল মৃত্যুর খবরটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে নিহতের চাচাতো ভাই এআর আহম্মেদ গভীর শোক জানিয়ে পোষ্ট করেন।
এ ব্যাপারে কালকিনি থানার ওসি মোঃ নাছির উদ্দিন মৃধা ঘটনা সত্যতা স্বীকার করে বলেন, কুয়াকাটা সমুদ্র সৈকতে বসে চোরা বালুতে আটকে এবং পানির ঢেউয়ের আঘাত খেয়ে নাহিদের ঘাড়ের রগ ছিরে গিয়ে গুরুতর আহত হয়। পরে সে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যায়। সে একজন কলেজের মেধাবী ছাত্র ছিল।

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *