কেবিজির এমডির মায়ের মৃত্যুতে দোয়া কামনা

রাজধানী

খান ব্রাদার্স গ্রুপের এমডি তোফায়েল কবরি খান রবিনের মা, ও তাড়াইল পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের সাবেক শিক্ষক মরহুম এজাবত হোসেন খানের স্ত্রী, সফল সংগ্রামী জীবনের অধিকারী ও সফল পরিবার যোদ্ধা, মোছাঃ খোশনাহার খানম (৮৩) গত ২০ সেপ্টেম্বর ভোর ৬টায় ঢাকার স্কয়ার হাসপাতালে বার্ধক্যজনিত রোগে চিকিৎসাধীন অবস্থায় ইন্তেকাল করেছেন (ইন্নালিল্লাহি…রাজিউন)। ওই দিনই বাদ জোহর বনশ্রী মসজিদে জানাজা শেষে তাকে আজিমপুর কবরস্থানে দাফন করা হয়। মৃত্যুকালে তিনি পাঁচ ছেলে দুই মেয়ে সহ অসংখ্য গুনগ্রাহী রেখে গেছেন। খোশনাহার খানমের মৃত্যুতে গত ২৪ সেপ্টেম্বর শুক্রবার বাদ জুমা তাঁর নিজ উপজেলা তাড়াইলে সকল মসজিদে দোয়া এবং তাঁর সন্তানদের নিজ বাসভবন ঢাকার বনশ্রীতে বাদ আছর কুরআনকানি মিলাদ ও দোয়া অনুষ্ঠিত হয়। তাঁর মৃত্যুতে শোকাহত পরিবারের পক্ষ থেকে আত্মীয়-স্বাজন শুভাকাঙ্খী সকলের কাছে মরহুমার বিদেহী আত্মার মগফেরাত কামনা করছি, যেন মহান অল্লাহতায়ালা তাঁকে জান্নাতবাসী করেন। মরহুমার পরিবারের এ শোক সময়ে যারা বিভিন্নভাবে সান্তনা সাহস দিয়ে, সহযোগিতা করে পাশে থেকে সমবেদনা জানিয়েছেন তাদের সকলের প্রতি গভীরভাবে কৃতজ্ঞতা জানাচ্ছি। সন্তানদের প্রতি আরজ, যে স্মৃতি বিজরিত পূর্ব দড়িজাহাঙ্গীর পুর গ্রামের মাটিতে সুদীর্ঘ ৫০ (প্রায়) বছর স্বামীকে নিয়ে সন্তানদের আদর্শ মানুষ ও প্রতিষ্ঠিত করার জন্য সংগ্রাম ও যুদ্ধ করেছেন, সেই গ্রামের বাড়ির পিছনে নবীর ঘর খোশনাহার হ্ফিজুল কুরআন একাডেমি (হাফিজি মাদ্রাসা) স্থাপনের জন্য নিবেদন। কারণ আল্লাহর রহমতে মরহুমার সন্তানেরা উচ্চ আসনে প্রতিষ্ঠিত। সেই সাথে পূর্ব দড়িজাহাঙ্গীর পুর গ্রামবাসীর পক্ষ থেকে শোকাহত সন্তানদের ও পরিবার বর্গের প্রতি গভী সমবেদনা ও দোয়া জানাচ্ছি। আল্লাহ যেন সন্তানদের এই শোক সইবার ও নেক আমল তৌফিক দান করেন। আমিন। দোয়া কামনায় মনিরুজ্জামান খান তপন। Ñবিজ্ঞপ্তি

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *