খিলগাঁও কবরস্থান হতে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করলো ঢাদসিক

নগর–মহানগর রাজধানী
ডেস্ক রিপোর্ট: ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ঢাদসিক) ৩টি ভ্রাম্যমাণ আদালত আজ (৫ মে) পুলিশের গোয়েন্দা শাখার (ডিবি) অফিস সংলগ্ন রাস্তায়, খিলগাঁও কবরস্থানে এবং হাজারীবাগ ও গেন্ডারিয়া এলাকায় অভিযান পরিচালনা করেছে।
ঢাদসিকের সম্পত্তি কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. মুনিরুজ্জামানের নেতৃত্বে আজ মিন্টু রোডে ডিবি অফিস সংলগ্ন রাস্তার উপর অবৈধভাবে রাখা ইট, বালু ও ইটের খোয়া সম্পূর্ণভাবে অপসারণ করা হয় এবং উচ্ছেদকৃত মালামাল খিলগাঁও কবরস্থানে ভরা ফেলা হয়। অপরদিকে খিলগাঁও কবরস্থানের জায়গা দখল করে অবৈধভাবে নির্মিত স্থাপনা উচ্ছেদ করে উচ্ছেদকৃত মালামাল নগর ভবনে নিয়ে আসা হয়। এর আগেও খিলগাঁও কবরস্থানের সীমানার মধ্যে গড়ে ওঠা অবৈধ স্থাপনা সরাতে সেখানে দুইবার ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করা হয়।
এদিকে করপোরেশনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট তানজিলা কবীর ত্রপার নেতৃত্বাধীন ভ্রাম্যমাণ আদালত এডিস মশার লার্ভা নিয়ন্ত্রণের লক্ষে আজ হাজারীবাগ ট্যানারি এলাকায় ২৫টি স্থাপনায় অভিযান পরিচালনা করেন। অভিযানে নির্মাণাধীন ২টি বাড়িতে এডিস মশার লার্ভা পাওয়ায় ২টি মামলা দায়ের ও নগদ ২০ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়।
করপোরেশনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট এ এইচ ইরফান উদ্দিন আহমেদের নেতৃত্বাধীন ভ্রাম্যমাণ আদালত আজ এডিস মশার লার্ভা নিয়ন্ত্রণের লক্ষে আজ গেন্ডারিয়া এলাকায় অভিযান পরিচালনা করেন। অভিযানে ২৪টি স্থাপনা পরিদর্শনে এডিস মশার লার্ভা পায়নি।
ঢাদসিক এর সম্পত্তি কর্মকর্তা ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মো. মুনিরুজ্জামান বলেন, ” মিন্টু রোডে ডিবি অফিস সংলগ্ন রাস্তার উপর অবৈধভাবে রাখা ইট, বালু ও খোয়া রাখায় যান চলাচল বিঘ্নিত হচ্ছিল। তা আমাদের নজরে আসার পর আজ সেখানে অভিযান পরিচালনা করেছি। অভিযানে ৮০০ ইট, আধা ট্রাকের মতো বালু ও খোয়া সম্পূর্ণরূপে অপসারণ করা হয়েছে। এছাড়াও আজ খিলগাঁও কবরস্থানের নির্ধারিত সীমার মধ্যে গড়ে ওঠা অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়েছে। কবরস্থানের নির্ধারিত সীমার মধ্যে গড়ে ওঠা অবৈধ স্থাপনা সরাতে ইতোপূর্বে সেখানে দু’বার উচ্ছেদ অভিযান পরিচালনা করা হলেও নতুন করে আরেকটি অবৈধ স্থাপনা গড়ে ওঠছে বলে আমাদের কাছে বার্তা আসে। আজ সেখানে অভিযান পরিচালনা করে অবৈধ স্থাপনা সম্পূর্ণরূপে উচ্ছেদ করা হয় হয়েছে এবং উচ্ছেদকৃত মালামাল করপোরেশনে প্রধান কার্যালয় নগর ভবনে নিয়ে আসা হয়েছে।”

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *