ঘুমন্ত স্ত্রীকে কুপিয়ে হত্যা করে পালাল ঘর জামাই

জাতীয় সারাবাংলা

ডেস্ক রিপোর্ট : ঘুমন্ত স্ত্রীকে কুপিয়ে হত্যা করার অভিযোগ ওঠেছে স্বামীর বিরুদ্ধে। বুধবার (৭ জুলাই) ভোর রাতে হবিগঞ্জের মাধবপুরের বুল্লা ইউনিয়নের মাহমুদপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত গৃহবধূ পারভিন আক্তার (৩৫) মাহমুদপুর গ্রামের মৃত নুরুল ইসলামের মেয়ে। ঘটনার পর স্বামী তকদির হোসেন (৪০) পালিয়ে গেছেন।

পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়, প্রায় সাত বছর আগে পারভিন আক্তারের সঙ্গে চান্দেরপাড়া গ্রামের রেনু মিয়ার ছেলে তকদির হোসেনের বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকে তকদির শ্বশুর বাড়িতে ঘর জামাই হিসেবে বসবাস করে আসছেন। আর্থিক সচ্ছলতার জন্য কয়েক বছর আগে পারভিন সৌদি আরবে পাড়ি জমান। প্রায় দেড় মাস আগে পারভিন সৌদি আরব থেকে দেশে ফেরেন। দেশে আসার পর স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে প্রায়ই পারিবারিক বিষয় নিয়ে বাকবিতণ্ডা হয়।

এলাকাবাসী জানান, মঙ্গলবার রাতে খাওয়া শেষ করে ঘুমিয়ে পড়েন পারভিন। রাতে তকদির হোসেন ধারালো অস্ত্র দিয়ে পারভিন আক্তারকে কুপিয়ে ক্ষতবিক্ষত করেন। এ সময় তাদের শিশু সন্তানরা চিৎকার শুরু করলে প্রতিবেশীরা ঘুম থেকে উঠে পারভিনের মরদেহ দেখতে পান। ঘটনার পর পরই পালিয়ে যান স্বামী। তাদের দুটি সন্তান রয়েছে।

মাধবপুর থানার পরিদর্শক তদন্ত আমিনুল ইসলাম বলেন, ‘খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য সদর আধুনিক হাসপাতালে মর্গে প্রেরণ করেছে। ঊর্ধ্বতন পুলিশ কর্মকর্তারা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। ঘাতককে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।’

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *