জমি সংক্রান্ত বিরোধ : পার্বতীপুরে নারীকে বিবস্ত্র করে মারপিট

সারাবাংলা

আব্দুল্লাহ আল মামুন, পার্বতীপুর থেকে : দিনাজপুরের পার্বতীপুরে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে এক নারীকে বিবস্ত্র করে মারপিটের অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় আহত ওই নারী পার্বতীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসাধীন রয়েছে। জানা যায়, পার্বতীপুর উপজেলার রামপুর ইউনিয়নের পূর্ব হুগলীপাড়া গ্রামের নজরুল ইসলামের পরিবারের সাথে একই এলাকার আব্দুল কাফির ছেলে নুরুল আমীনের জমি সংক্রান্ত বিরোধ চলে আসছিলো। এরই জের ধরে গত শুক্রবার নজরুল ইসলামের পরিবারের ওপর হামলা চালায় আব্দুল কাফির ছেলে নুরুল আমীন, এজাজুল হক, এনামুল হক এবং নুরুল আমীনের ছেলে রুবেলসহ আরও কয়েকজন। এসময় তাদের হামলায় গুরুতর আহতহন নজরুল ইসলামের স্ত্রী মোতাহারা বেগম। হামলার এক পর্যায়ে রুবেল ওই নারীকে বিবস্ত্র করে বেধরক মারপিটের এক পর্যায়ে শ্লীলতাহানী করা হয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন ভুক্তভোগী ওই নারী। এক পর্যায়ে গুরুতর আহত ওই নারীকে উদ্ধার করে পার্বতীপুর উপজেলা স্বাস্থ্যকেন্দ্রে ভর্তি করেন স্থানীয়রা। রোববার হাসপাতালের ছাড়পত্র পেয়ে সাংবাদিকদের দারস্ত হন মোতাহারা। এসময় তিনি এই প্রতিনিধিকে বলেন, রামপুর মৌজার ১১৯ খতিয়ানের ৬৮৫৪ দাগের ৭ শতক জমিতে দীর্ঘদিন যাবত বাড়ি নির্মানের পর বসবাস করে আসছিলেন তার পরিবার। কিছুদিন আগে হঠাৎ হামলাকারী নজরুল ইসলাম সেখানে ৪ শতক জমির ক্রয় সূত্রে মালিকানা দাবি করলে তাদের মাঝে বিরোধের সৃষ্টি হয়। এরই জেরে শুক্রবার ভোরে পরিকল্পিতভাবে তাদের ওপর হামলা করা হয় বলে জানান মোতাহারা।
প্রশাসনের কাছে লিখিত অভিযোগের বিষয়ে মোতাহারা বলেন, রোববারই আমি হাসপাতাল থেকে ছাড়পত্র পেয়েছি। হাসপাতালে ভর্তি থাকায় থানায় অভিযোগ দিতে বিলম্ব হয়েছে জানিয়ে তিনি আরও বলেন, এ বিষয়ে থানায় লিখিত অভিযোগের প্রস্তুতি চলছে। অভিযুক্ত নজরুল ইসলাম হামলার বিষয়টি অস্বীকার করে জানান, দীর্ঘদিন যাবত আমার জমি অবৈধভাবে দখল করে আছে নজরুলের পরিবার। এ বিষয়ে আদালতে মামলা চলমান রয়েছে বলেও তিনি উল্লেখ করেন।

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *