দশমিনায় সংযোগ সেতু ঝুঁকিপূর্ণ

সারাবাংলা

সাফায়েত হোসাইন, দশমিনা থেকে :
পটুয়াখালীর দশমিনা উপজেলার পুর্ব লক্ষীপুর ও পশ্চিম লক্ষীপুর এলাকার সংযোগ সেতুটি ভয়াবহ ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে পড়েছে। সেতুটি ১৯ বছর আগে নির্মানের পর কোন রকম সংস্কার না করায় সেতুর র‌্যালিং পুরোপুরি নষ্ট হয়ে ভেঙে গেছে। সেতুটির মাঝখানে ভেঙে বড় গর্ত হয়ে রড বেড়িয়ে গেছে। সেতুটি ঝুকিপূর্ণ হয়ে পড়ায় এলাকার মানুষ ও যানবাহন চলাচল বন্ধ রয়েছে।
স্থানীয়রা জানান, সেতুটি ভেঙে যাওয়া ও দীর্ঘদিন সংস্কার না হওয়ায় স্কুল কলেজের শিক্ষার্থী বৃদ্ধ শিশু মহিলা সহ মানুষের চলাচলে চরম দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে। স্থানীয় সরকার প্রকৌশল অধিদপ্তর (এলজিইডি) সূত্রে জানা যায়, ২০০০-০১ অর্থবছরে পুর্ব লক্ষীপুর ও পশ্চিম লক্ষীপুর এলাকার সংযোগ সেতুটি নির্মাণ করা হয়েছিল।
পূর্ব লক্ষীপুর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক জয়ন্ত মন্ডল জানান, সেতুটি ভেঙে পড়ে থাকায় বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী সহ মানুষের যাতায়াতে চরম দূর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে। ইউপি সদস্য আব্দুর রব আকন জানান, প্রায় একযুগ আগে সেতুটির মাঝখানে ভেঙ্গে বড় গর্তের সৃষ্টি হয়ে রড বেরিয়ে গেছে। বর্তমানে সেতুটিতে কোন যানবাহন ও মানুষ চলাচল করতে পারছে না। সেতুটি ভেঙে পড়ে থাকার বিষয়টি উপজেলা প্রকৌশলীকে অনেকবার জানিয়েছি। দশমিনা ইউপি চেয়ারম্যান এ্যাড. ইকবল মাহম্মুদ লিটন জানান, সেতুর বিষয়টি মাসিক উন্নয়ন সমন্বয় সভায় তুলে ধরা হবে। এলজিইডির উপজেলা প্রকৌশলী মোঃ মকবুল হোসেন জানান, এরকম বেশ কয়েকটি সেতু ভেঙে পড়ে রয়েছে,আগামী মাসিক সমন্বয় সভায় ওই সেতুগুলোর সংস্কার ও পুনরায় নির্মান করার প্রস্তাব করা হবে।

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *