নবাবগঞ্জে নির্যাতনের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন

সারাবাংলা

নবাবগঞ্জ (ঢাকা) প্রতিনিধি:
ঢাকার নবাবগঞ্জে নির্যাতনের প্রতিবাদে সংবাদ সম্মেলন করেছে নির্যাতনের শিকার উপজেলা মহিলা আওয়ামী লীগের সদস্য সাথী রুবী রহমান।মঙ্গলবার দুপুরে উপজেলা প্রেসক্লাবে উপস্থিত হয়ে তিনি এ সংবাদ সম্মেলন করেন।
সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে তিনি বলেন, উপজেলার নয়নশ্রী ইউনিয়নের আওয়ামী লীগের সাবেক সভাপতি নুরু পত্তনদারের বোন নিতুর সাথে তাদের বিরোধ রয়েছে। কিছুদিন ধরে নিতু ও তার পরিবার জোরপুর্বক রুবীর পৈত্রিক জমি থেকে মাটি কেটে নেওয়ার চেষ্টা করছেন। সবশেষ গত ৪ই জুন শুক্রবার নিতুর পরিবার আবারও তাদের জমির মাটি কাটতে যায়। এসময় তিনি বাঁধা দিলে নিতু ও তার মেয়ে শান্তা ছুরি ও লাঠি দিয়ে তার উপর হামলা করে। আহতবস্থায় স্থানীয়দের সহায়তায় তাকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়। তিনি এখনো চিকিৎসাধীন আছে। এঘটনায় ঐদিনই নিতু ও তার মেয়ে শান্তাকে আসামী করে থানায় লিখিত অভিযোগ করেন তিনি। তিনি আরো বলেন, ঘটনার দিন তিনি নিতুর ভাগিনা উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি ও নয়নশ্রী ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান পলাশ চৌধুরীকে ফোন দিয়েই ঘটনাস্থলে গিয়েছিলেন। পলাশ চৌধূরী তাকে সরজমিনে যেতে বলেছিলেন। অথচ তার উপর হামলার সময় তিনি পলাশ চৌধূরীকে একাধিকবার ফোন দিলেও ফোন রিসিভ করেনি বলে অভিযোগ করেন তিনি। উল্টো এখন থানায় যেন মামলা না হয় সেই চেষ্টাই করছেন পলাশ চৌধুরী। এসময় তিনি আসামীদের আইনের আওতাায় আনার জন্য প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্ষণ করেন। এব্যাপারে উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি ও নয়নশ্রী ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান পলাশ চৌধুরী বলেন, আমাকে নিয়ে যে সব অভিযোগ করেছেন তা সম্পূর্ন মিথ্যা বানোয়াট এবং ভিত্তিহীন তিনি আমাকে হেয় করতে উদ্দেশ্য প্রনোদিত হয়ে এসব করছেন। তিনি নিজের শরীরে নিজেই আঘাত করে হাসপাতালে ভর্তি আছেন। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন নয়নশ্রী ইউনিয়ন ইউনিয়ন প্রবীন আওয়ামীলীগ নেতা আব্দুল হালিম মোল্লা, যুবলীগ নেতা সোহরাব হোসেন নারী নেত্রী নাজমা বেগম।

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *