প্রয়োজনে তালেবানের সঙ্গে কাজ করবে যুক্তরাজ্য

আন্তর্জাতিক

ডেস্ক রিপোর্ট : ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন জানিয়েছেন প্রয়োজন হলে তালেবানের সঙ্গে যুক্তরাজ্য অবশ্যই কাজ করবে। এবং আফগানিস্তানের জন্য সমাধান বেড় করতে যুক্তরাজ্যের রাজনৈতিক ও কূটনৈতিক প্রচেষ্টা থাকবে।

বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানিয়েছে, শুক্রবার (২০ আগস্ট) লন্ডনে গণমাধ্যমের সঙ্গে আলাপকালে বরিস জনসন এ কথা বলেন। তিনি বলেছিলেন, তালেবানের মূল্যায়ন করা হবে তাদের কাজে, কথায় নয়।

১৭ আগস্ট তালেবানের মুখপাত্র জাবিউল্লাহ মুজাহিদ বলেছিলেন, ‘এই তালেবান ২০ বছর আগের তালেবান নয়।’

আফগানিস্তান নিজেদের নিয়ন্ত্রণে নিয়ে গনি সরকারকে ক্ষমতা থেকে হটানোর পর প্রথম সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেছেন, বিশ বছর আগেও আমাদের দেশ মুসলিম রাষ্ট্র ছিল। আজও আমাদের দেশ মুসলিম রাষ্ট্র। কিন্তু অভিজ্ঞতা, পরিপক্বতা এবং দৃষ্টিভঙ্গির বিচারে বিশ বছর আগের তালেবানের সাথে আজকের তালেবানের বিশাল তফাত রয়েছে। আমরা এখন যেসব পদক্ষেপ নেব তার সাথে ওই সময়কার তফাত রয়েছে। আর এটা বিবর্তনের ফসল।

তিনি বলেন, অন্যান্য দেশের বিভিন্ন পন্থা, নিয়ম-কানুন আছে। অন্যদের মতো আমাদেরও (আফগানদের) মূল্যবোধ অনুযায়ী নিজস্ব নিয়ম-কানুন থাকার অধিকার রয়েছে। আমরা শরিয়া আইনের অধীনে নারীদের অধিকারের প্রতি সর্বদা অঙ্গীকারবদ্ধ।

তালেবান মুখপাত্র জাবিউল্লাহ মুজাহিদ জানিয়েছেন, তারা শান্তি চায়। পুরোনো শত্রুদের বিরুদ্ধে প্রতিশোধ নেবে না এবং শরিয়া আইন অনুযায়ী নারীদের অধিকারকে সম্মান দেখাবে।

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *