ফুলবাড়ীয়ায় জগ প্রতীক সমর্থকদের গণজোয়ার

সারাবাংলা

নজরুল ইসলাম খান, ফুলবাড়ীয়া থেকে : ফুলবাড়ীয়া পৌরসভার ভোটাররা সৎ ও যোগ্য মেয়র প্রার্থীকে ভোট দেবেন। তাদের যুক্তি হচ্ছে, এমন প্রার্থী নিজের জন্য নয়, জনগণ এবং পৌরসভার সব সমস্যা সমাধানের জন্য কাজ করবেন। এ সম্পর্কে মেয়র প্রার্থী মো. গোলাম মোস্তফা বলেন, আন্দোলন-সংগ্রামকে আমি কখনো ভয় করিনি। সব সময় উপজেলার ত্যাগী, নির্যাতিত ও অসহায় নেতাকর্মীরা আমার পাশে ছিল। সন্ত্রাস, চাঁদাবাজ, মাদকমুক্ত সমাজ ও দুর্নীতিসহ সব অপরাধ সমাজ থেকে নির্মূল করবো এই আমার অঙ্গীকার। এ ছাড়া শিশুদের জন্য একটি সুন্দর শিশু পার্ক, বইপ্রেমীদের গ্র্রন্থাগার, উন্নত সড়ক
যোগাযোগ ব্যবস্থা, পৌর শহরকে পরিচ্ছন্ন, সবুজ, আলোকিত, জলাবদ্ধতামুক্ত নগর, বিশুদ্ধ জলের অভাব দূর, আধুনিক বর্জ্য
ব্যবস্থাপনার মাধ্যমে দূষণ কমানো, স্ট্রিটলাইট, নর্দমা ব্যবস্থা, শিক্ষার উন্নয়ন, স্বাস্থ্যসেবার উন্নয়ন, যানজট নিরসন সহ ফুলবাড়ীয়া
পৌরসভাকে আধুনিক নগর গড়ে তোলার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন।

শহরের পুরাতন গরুহাটা এলাকার বাসিন্দা সাদিয়া সুলতানা বলেন, মো. গোলাম মোস্তফা (জগ প্রতীক) একজন জনপ্রিয় ব্যক্তি।
তার পক্ষে অনেকের সমর্থন আছে। আমরা চাই নির্বাচন অবাধ, নিরপেক্ষ ও সুষ্ঠুভাবে অনুষ্ঠিত হোক, যাতে সবাই নির্বিঘেœ
তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করতে পারেন এবং তাদের পছন্দের প্রার্থী বেছে নিতে পারেন। পৌর শহরের বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখা
যায়, ১৬ জানুয়ারি অনুষ্ঠেয় পৌর নির্বাচন নিয়ে এখন জনমনে উৎসবমুখর পরিবেশ বিরাজ করছে। শহরের বিভিন্ন স্থানে প্রার্থীর
পোস্টার সাঁটানো হয়েছে। মো. গোলাম মোস্তফা (জগ) প্রতীকের পক্ষে ভোট চেয়ে মাইকে প্রচারণা চালানো হচ্ছে। প্রার্থী ও তাদের
কর্মী-সমর্থকেরা বাড়ি বাড়ি গিয়ে ভোট প্রার্থনা করছেন। নেতাকর্মী ও সমর্থকদের মধ্যে বিপুল সাড়া জেগেছে। তিনি শক্ত অবস্থানে
এবং মো. গোলাম মোস্তফা (জগ) প্রতীকের জয় শতভাগ আশাবাদী বলে সমর্থকরা জানান।

গতকাল মঙ্গলবার বেলা ১১টার দিকে ফুলবাড়ীয়া চত্ত¡রের সামনে থেকে বিভিন্ন দোকানে, পৌর সুপার মার্কেট, শাহজালাল রোড,
ফুলবাড়ীয়া মধ্যপাড়া, হাজী রোড, ভালুকজান, গরুহাটা, গৌরীপুর, হাসপাতাল রোড, বাসস্ট্যান্ড এলাকায় দোকানে দোকানে গিয়ে
ভোটারদের কাছে ভোট ও দোয়া প্রার্থনাকালে তিনি এইসব কথা বলেন। তিনি আরও বলেন, আমি এলাকা ঘুরে ব্যাপক সমর্থন
পাচ্ছি। নেতাকর্মীরাও আমাকে মূল্যায়ণ করছে। বঙ্গবন্ধুর আদর্শের রাজনীতি করতে গিয়ে আমি বিগত দিনে মানুষের কল্যাণে কাজ
করেছি। পৌর এলাকার একাধিক ভোটাররা বলেন, পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মো. গোলাম মোস্তফা একজন
বঙ্গবন্ধুর সৈনিক। পৌরসভার প্রতিটি ওয়ার্ডে তার শত শত কর্মী রয়েছে। তিনি জয়ের মাধ্যমে দৃষ্টান্ত স্থাপন করবে। এ জন্য
সবার সহযোগিতা প্রয়োজন বলে সমর্থকরা আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *