বিশ্বকাপ বাছাই পর্বে জয় দিয়ে শুরু আর্জেন্টিনার

খেলাধুলা

স্পোর্টস ডেস্ক: বিশ্বকাপ বাছাই পর্বে আর্জেন্টিনার শুরুটা হলো জয় দিয়ে। সেই জয়টাও এলো লিওনেল মেসির একমাত্র গোলেই। ম্যাচের ১৩ মিনিটে পেনাল্টি থেকে গোল করেছিলেন আর্জেন্টাইন অধিনায়ক। লা বোম্বোনেরার ম্যাড়মেড়ে ম্যাচের নিষ্পত্তি হয়েছে ওই গোলেই।

ইকুয়েডরের বিপক্ষে অনুমিত একাদশটাই মাঠে নামিয়েছিলেন আর্জেন্টিনা কোচ লিওনেল স্কালোনি। তবে গোলবার পাহারায় ফ্রাঙ্কো আর্মানিকে রেখেছিলেন তিনি, একাদশে চমক ছিল সেটিই। এমিলানো মার্টিনেজের নামটা ম্যাচের আগে জোরেসোরে শোনা গেলেও তার অভিষেক হয়নি এই ম্যাচে। যদিও আর্মানিকেও খুব একটা বিপদে পড়তে হয়নি। কোনো রকম পরীক্ষা না দিয়েই আরও এক ম্যাচ উতরে গেছেন রিভার প্লেট গোলরক্ষক।

বৃহস্পতিবার ঘরের মাঠ স্তাদিও আলবার্তো হোসে আরমান্দো স্টেডিয়ামে শুরু থেকে আক্রমণাত্মক ফুটবল খেলে আর্জেন্টিনা। তবে গোছানো ফুটবল খেলতে না পারায় চূড়ান্ত পর্যায় গিয়ে গোলের দেখা পাচ্ছিল না।

খেলার ১১তম মিনিটে আর্জেন্টাইন মিডফিল্ডার লুকাস ওক্যাম্পাসোকে প্রতিপক্ষের ডিফেন্ডার পারভিস এস্তুপিনান ফাউল করলে রেফারি পেনাল্টির বাঁশি বাজান। আর সেখান থেকেই ১৩তম মিনিটে গোল করে আলবিসেলেস্তাদের এগিয়ে নেন অধিনায়ক মেসি।

তবে বিরতির আগে আরও কয়েকটি সুযোগ পেলেও ইকুয়েডরের রক্ষণের কাছে প্রতিহত হলে ব্যবধান বাড়ানো হয়নি আর্জেন্টিনার।

দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতেই ব্যবধান বাড়াতে পারতো আর্জেন্টিনা। তবে মেসির থেকে পাওয়া বল গোলমুখের একেবারে কাছ থেকেও শট নিয়ে বঞ্চিত হন ওক্যাম্পাসো। এই সেভিয়া তারকার জোরালো শটটি রুখে দেন ইকুয়েডর গোলরক্ষক আলেক্সান্দার দোমিঙ্গেস।

এরপর আরও বেশকয়েকটি সুযোগ পেলেও তা থেকে আর গোল আদায় করে নিতে পারেনি আর্জেন্টিনা। ফলে ১-০ গোলের জয় নিয়েই মাঠ ছাড়ে দলটি।

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *