ভারতে করোয় দৈনিক মৃত্যুর হার কমে ৯৭৯ জন

আন্তর্জাতিক

ডেস্ক রিপোর্ট: অল্প পরিমাণে হলেও ভারতে রোববার বেড়েছিল সংক্রমণ ও মৃত্যুর সংখ্যা। সোমবার সেই ধারায় ছেদ পড়েছে। সর্বশেষ ২৪ ঘণ্টায় ভারতে কমে এসেছে নতুন সংক্রমিত মানুষের সংখ্যা। এছাড়া প্রায় আড়াই মাস পর দেশটিতে দৈনিক মৃত্যু নেমে এসেছে এক হাজারের নিচে।

সোমবার (২৮ জুন) ভারতের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় দেশটিতে নতুন করে করোনায় সংক্রমিত হয়েছেন ৪৬ হাজার ১৪৮ জন মানুষ। অর্থাৎ আগের দিনের তুলনায় দেশটিতে নতুন সংক্রমিত রোগী কমেছে প্রায় চার হাজার। সর্বশেষ এই সংখ্যাসহ মহামারির শুরু থেকে দেশটিতে করোনায় আক্রান্তের মোট সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৩ কোটি ২ লাখ ৭৯ হাজার ৩৩১ জনে।

অন্যদিকে ভারতে আড়াই মাস পর দৈনিক মৃত্যু নেমেছে হাজারের নিচে। সর্বশেষ গত ১৩ এপ্রিল দেশটিতে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুর সংখ্যা ছিল হাজারের নিচে। এরপর থেকে এই সংখ্যা কেবলই বাড়ছিল। মে মাসের শুরেুতে তা চার হাজার ছাড়িয়ে যায়। তবে কঠোর বিধিনিষেধ ও কার্যকর লকডাউনের কারণে দেশটিতে বর্তমানে পরিস্থিতির অনেকটাই উন্নতি হয়েছে।

গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে করোনায় আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন ৯৭৯ জন। অর্থাৎ আগের দিনের তুলনায় গত একদিনে মৃত্যু কমেছে প্রায় ৩০০ জন। মহামারির শুরু থেকে দেশটিতে এখন পর্যন্ত মারা গেছেন ৩ লাখ ৯৬ হাজার ৭৩০ জন।

এদিকে সর্বশেষ ২৪ ঘণ্টায় ভারতে দৈনিক আক্রান্তের তুলনায় বেশি সংখ্যক মানুষ সুস্থ হয়েছেন। ফলে দেশটিতে কমেছে সক্রিয় রোগীর সংখ্যা। গত একদিনে ভারতে সুস্থ হয়েছেন সাড়ে ৫৮ হাজার মানুষ। দেশটিতে সুস্থতার হার বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৯৬ দশমিক ৮০ শতাংশ।

একসময় দেশটিতে ৩৭ লাখের বেশি সক্রিয় রোগী থাকলেও কমতে কমতে সেই সংখ্যা নেমে এসেছে পৌনে ৬ লাখের নিচে। গত ২৪ ঘণ্টায় ভারতে সক্রিয় রোগী কমেছে প্রায় ১৩ হাজার। দেশটিতে এখন মোট সক্রিয় রোগীর সংখ্যা ৫ লাখ ৭২ হাজার ৯৯৪ জন।

এদিকে করোনা সংক্রমণ কমলেও ভারতে চিন্তা বাড়াচ্ছে ভাইরাসের ডেল্টা প্লাস ভ্যারিয়্যান্ট। দ্রুত গতিতে ছড়াচ্ছে করোনার নতুন এই ধরনটি। ইতোমধ্যেই ভারতের ১২টি রাজ্যে ভাইরাসের এই ধরনে আক্রান্ত ৫১ রোগী শনাক্ত করা হয়েছে।

সূত্র: এএনআই

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *