মধুখালীর ২৬ কমিউনিটি ক্লিনিক স্বাস্থ্যসেবা পাচ্ছে গ্রামের মানুষ

সারাবাংলা

সালেহীন সোয়াদ সাম্মী, মধুখালী থেকে
তৃণমূলে স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত করার লক্ষে কাজ করছে কমিউনিটি ক্লিনিক। মধুখালী উপজেলার ২৬টি কমিউনিটি ক্লিনিকে ২৬ জন সিএইচসিপির মাধ্যমে প্রায় ৩ লাখ মানুষ সেবা পাচ্ছে। মীরের কাপাষহাটিয়া কমিউনিটি ক্লিনিকের দায়িত্বরত সিএইচসিপি মির্জা হিসবুল জানান, সরকার তৃনমুল স্বাস্থ্যসেবা নিশ্চিত করার লক্ষে কমিউনিটি ক্লিনিকের মাধ্যমে সেবা দিচ্ছেন। গ্রামের মানুষ বিনামূল্যে বিভিন্ন প্রকার ঔষধ পায়। প্রতিদিন আমার ক্লিনিকে ৫০-৬০ জন চিকিৎসা সেবা ও ঔষধ নিচ্ছেন। শুক্রবার ও সরকারী ছুটি বাদে প্রতিদিন গ্রামের জনগন সেবা পাচ্ছে। গ্রামীন জীবনে স্বস্থি এনেছে কমিউনিটি ক্লিনিক। প্রকল্প সূত্রে জানা যায়, বর্তমানে দেশে ১৩ হাজার ৮৮১টি কমিউনিটি ক্লিনিক থেকে স্বাস্থ্য সেবা দেয়া হচ্ছে। ২০২২ সালের মধ্যে বাকি প্রায় ৪ হাজার কমিউনিটি ক্লিনিক চালু করতে পারবে। এখানে ৩০ প্রকার ওষুধ বিনামূল্যে বিতরণের পাশাপাশি স্বাস্থ্য, পরিবার এবং মাতৃসেবা দেয়া হয়। কমিউনিটি ক্লিনিকে চিকিৎসা সেবা নিতে আসা রোগীরা বলেন, বাড়ির কাছে কমিউনিটি ক্লিনিকে সকল ধরনের ওষুধ পেয়ে থাকি। আমাদের পক্ষে ৮-১০ কিলোমিটারেরও বেশি দূরে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স যেতে হয় না। মধুখালী উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাঃ মোঃ আব্দুস সালাম বলেন, কমিউনিটি ক্লিনিকের সেবার কারণেই দেশের প্রত্যন্ত অঞ্চলসহ গ্রামীণ মানুষের স্বাস্থ্যসেবার মান বেড়েছে। এখানে সবচেয়ে বেশি গর্ভবতী প্রসূতি রোগীর সেবা ও ঔষধ প্রদান করা হয়ে থাকে। হাতের কাছে ফ্রি চিকিৎসা সেবা ও ওষুধ পেয়ে সবাই খুশি। কমিউনিটি ক্লিনিকগুলোতে নিয়মিত মনিটরিং করা হচ্ছে।

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *