মুরাদিয়ার খালে বিষ প্রয়োগে মাছ নিধন

সারাবাংলা

দুমকি (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি
পটুয়াখালীর দুমকি উপজেলার মুরাদিয়া ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ডের ক্যাচ-ক্যাচিয়া খালে বিষ প্রয়োগে মাছ নিধনের অভিযোগ পাওয়া গেছে। স্থানীয়ভাবে জানা গেছে বুধবার দিবাগত রাতে ঐ এলাকার আক্কেল দেওয়ানের পুত্র জামাল দেওয়ান (৩০) ও আঃ রাজ্জাক মৃধার পুত্র মামুন মৃধা (২২) খালে বিষক্ত ঔষধ দেয় এবং সকালে মাছ ধরা অবস্থায় জনতার ধাওয়া খেয়ে পালিয়ে যায়।
ভুক্তভোগী পুলিশের অবসর প্রাপ্ত এসআই গোলাম মোস্তফা হাওলাদার বলেন, আমার দুটি পুকুরে খালের সাথে মাটির নিচ দিয়ে সংযোগ থাকায় খালের বিষক্ত পানি ঢুকে প্রায় লক্ষাধিক টাকার মাছ মরে গেছে। ৪নং ওয়ার্ড ইউপি সদস্য হাফিজুর রহমান ফোরকান বলেন, সরকারি খালে বিষ প্রয়োগে মাছ ধরা দণ্ডনীয় অপরাধ, খালের বিষাক্ত পানি ব্যবহারে স্বাস্থ্য ঝুকির সম্ভাবনা রয়েছে। স্থানীয় মুনসুর হাওলাদার, অব. চৌকিদার নজরুল ইসলাম ও মাও.হাবিবুর রহমান দুষ্কৃতকারী জামাল ও মামুনের দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তি দাবি জানিয়েছেন। মুরাদিয়া ইউপি চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান সিকদার বলেন, তদন্ত করে দোষীদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। এ ব্যাপারে দুমকি উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা জাহাঙ্গীর মিয়া ঘটনাস্থল পরিদর্শন করে সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, সরকারি খালে বিষ প্রয়োগে মাছ নিধনে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে অভিযোগ পেলে আইনুগ ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে। দুমকি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোঃ আব্দুস সালাম বলেন, এব্যাপারে থানায় কোন অভিযোগ আসেনি অভিযোগ পেলে অবশ্যই প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *