মেলবোর্নে বিশ্বের দীর্ঘতম লকডাউনের সমাপ্তি

আন্তর্জাতিক

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: করোনা মহামারিরর কারণে বিশ্বের নানা দেশ আংশিক বা পূর্ণ লকডাউনে যেতে বাধ্য হয়েছে। কখনও কখনও এই লকডাউন কোনো সুনির্দিষ্ট শহরেও দেয়া হয়েছে। পরিস্থিতির আলোকে কোনো কোনো জায়গায় অল্পদিনেই তুলে দেয়া হয়েছে লকডাউনের বিধিনিষেধ। তবে ব্যতিক্রম ছিলো অস্ট্রেলিয়ার অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ শহর মেলবোর্ন। বাড়তি সতর্কতার কারণে ৬ বারে দেয়া ২৬২ দিনের লকডাউনের অবশেষে সমাপ্তি ঘটছে। বলা হচ্ছে এটিই বিশ্বের সবচেয়ে দীর্ঘতম লকডাউনের ঘটনা।

আজ রোববার লকডাউন প্রত্যাহার করে দেয়া ঘোষণায় ভিক্টোরিয়া রাজ্যের ( রাজধানী মেলবোর্ন) প্রধান ড্যানিয়েল অ্যান্ড্রিউ বলেন, আজ মেলবোর্নের বাসিন্দাদের জন্য আনন্দের দিন। কারণ । শহরটির বাসিন্দাদের করোনার ডাবল ডোজ ভ্যাক্সিন দেয়ার হার ৭০ শতাংশে পৌঁছার পর এমন ঘোষণা দেয়া হলো।

মেলবোর্নের পাশের রাজ্য ভিক্টোরিয়ায় করোনার প্রকোপ এখনো উর্ধ্বমূখি। কিন্তু রাজধানীতে ভ্যাক্সিন দেয়ার হার বর্তমানে ৭০ শতাংশ। রোববার ভিক্টোরিয়াতে করোনা ভাইরাসে নতুন আক্রান্ত শনাক্ত হয়েছেন ১ হাজার ৮৩৮ জন। মৃত্যু হয়েছে ৭ জনের। নিউ সাউথ ওয়েলসে একশ দিনে ধরে চলা লকডাউন গত সপ্তাহে শিথিল করা হয়। রাজ্যে ৮০ শতাংশ মানুষ ভ্যাক্সিন নিলেও নতুন করে ৩০১ জন আক্রান্ত এবং ১০ জনের মৃত্যু হয়েছেন।

অন্তত ৫০ লাখ মানুষের বসবাস মেলবোর্ন শহরে। গণমাধ্যমের হিসাবে ২৬২ দিনের লকডাউন হলো সবচেয়ে দীর্ঘতম। দ্বিতীয় সর্বোচ্চ লকডাউনে ছিলো আর্জেন্টিনার রাজধানী বুয়েন্সআয়ার্স। সেখানে ২৩৪ দিনের লকডাউন ছিল।

তবে বিগত মাসে অস্ট্রেলিয়ায় করোনা পরিস্থিতি উন্নত অনেক দেশের তুলনায় স্বস্তিদায়ক। দেশটিতে অন্তত ১ লাখ ৪৩ হাজার ২০০ মানুষ করোনায় আক্রন্ত হয়েছেন। একই সময়ে ১ হাজার ৫৩২ জন মারা গেছেন। আক্রান্তদের মধ্যে সুস্থ হয়েছেন ১ লাখ ১০ হাজার ১০০ জন। সূত্র: আল জাজিরা

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *