সোমবার, ২৪ জুন ২০২৪, ০৩:৩০ অপরাহ্ন
শিরোনামঃ
দশমিনায় আওয়ামীলীগের ৭৫তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালন নবীগঞ্জে বন্যা দুর্গত এলাকায় বিভাগীয় কমিশনার নন্দীগ্রামে দই-মিষ্টির প্রতিষ্ঠানে ফের জরিমানা সালথায় আ’লীগের প্লাটিনাম জয়ন্তী উপলক্ষে আলোচনা সভা ফেনী সদর উপজেলার নির্বাচিত জনপ্রতিনিধিদের দায়িত্ব গ্রহণ মুরাদনগরে উপজেলা আওয়ামী লীগের প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীর বর্ণাঢ্য আয়োজন জামালপুরের আওয়ামী লীগের ৭৫ তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালন পাইকগাছায় রাইস মিলের বর্জ্যে পরিবেশ দূষণ, দুর্ভোগে এলাকাবাসী নান্দাইলে পরিকল্পনা মন্ত্রীর স্বেচ্ছাধীন তহবিলের ১০লাখ টাকার চেক বিতরণ সালথায় হারিয়ে যাচ্ছে ঐতিহ্যবাহী মৃৎশিল্প পাইকগাছায় বিনামূল্যে কৃষকদের মাঝে নয় হাজার নারিকেলের চারা বিতরণ করেন এমপি রশীদুজ্জামান আওয়ামী লীগের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর শোভাযাত্রায় মানুষের ঢল প্রধানমন্ত্রী দুই দিনের রাষ্ট্রীয় সফরে নয়াদিল্লি পৌঁছেছেন উপকূলের উন্নয়নে জাতীয় বাজেটে বিশেষ বরাদ্দের দাবিতে মানববন্ধন ও সমাবেশ সালথায় ২০টি নতুন ঢাল উদ্ধার করেছে পুলিশ কাপ্তাই থানা পুলিশের অভিযানে গ্রেফতারি পরোয়ানা ভুক্ত পলাতক আসামি আটক ২  মুরাদনগরে রোহিঙ্গা যুবকে সনদ দেওয়ায় ডিবির হাতে আটক ইউপি সচিব জলবায়ু সহিষ্ণুতা অর্জনের লক্ষ্যে বিসিসিটির সংস্কার করা হবে : পরিবেশমন্ত্রী রেমালের আঘাতে বেশি ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে পাইকগাছা ও কয়রা উপজেলা:এমপি রশীদুজ্জামান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সফরসঙ্গী গণমাধ্যমব্যক্তিত্ব পীযূষ বন্দোপাধ্যায় উত্তরায় মোবাইল ছিনতাইয়ের অভিযোগে গ্রেফতার ৩ ফরিদপুরের সালথায় গ্রীষ্মকালীন পেঁয়াজ চাষ নারায়ণগঞ্জে স্ত্রীর মামলায় নবনির্বাচিত উপজেলা চেয়ারম্যান কারাগারে নবীগঞ্জে কুশিয়ারা নদীর পানি বিপদ সীমার উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে! পাইকগাছায় রেমালের আঘাতে পিচের রাস্তা ভেঙ্গে ব্যাপক ক্ষতি পটুয়াখালী সোনালী অতীত বনাম দশমিনা সোনালী অতীত ফাইনাল খেলা সম্পন্ন আমাদের চারপাশের প্রকৃতিকে রক্ষায় সবাইকে এগিয়ে আসতে হবে- এমপি রশীদুজ্জামান ঈদের পর কাল থেকে অফিস খুলছে, চলবে নতুন সময় অনুযায়ী এবারের ঈদে ১ কোটি ৪ লাখ ৮ হাজার ৯১৮টি গবাদিপশু কোরবানি দেওয়া হয়েছে আসুন ঈদুল আজহার ত্যাগের চেতনায় দেশ ও মানুষের কল্যাণে কাজ করি: প্রধানমন্ত্রী

যেসব লক্ষণে বুঝবেন কিডনি নষ্ট হওয়ার ইঙ্গিত

লাইফস্টাইল ডেস্ক
মঙ্গলবার, ৯ মে, ২০২৩, ১১:৫৮ অপরাহ্ন

শরীরের গুরুত্বপূর্ণ অঙ্গগুলোর মধ্যে কিডনি অন্যতম। তবে বিভিন্ন কারণে কিডনি অকেজো হয়ে যেতে পারে। কিডনি রোগ খুব নীরবে শরীরের ক্ষতি করে। কিডনি হয়তো ধীরে ধীরে নষ্ট হচ্ছে। কিন্তু আপনি সচেতনতার অভাবে তা ধরতে পারছেন না। আপনার প্রতিদিনের জীবনযাপনের ধরনই বলে দেয়, আপনি কতটা সুস্থ থাকবেন। আপনার খাদ্যাভ্যাস, জীবনযাপনে তাই পরিবর্তন আনা জরুরি। কিছু লক্ষণ রয়েছে যেগুলো দেখলে কিডনির সমস্যার বিষয়ে সতর্ক থাকা যায়। মিলিয়ে নিন, আপনার শরীরেও এসব সমস্যা দেখা দিচ্ছে কি না। তাহলে কিডনির বিষয়ে সতর্ক হোন-

বার বার প্রস্রাব
অনেকেরই এই সমস্যা রয়েছে। একবার প্রস্রাব করে আসার কিছুক্ষণ পরেই আবার প্রস্রাব পেয়ে যায়। বার বার প্রস্রাব করা হতে পারে কিডনির সমস্যার অন্যতম লক্ষণ। কারণ আমাদের কিডনি যখন ঠিকভাবে কাজ করতে পারে না তখন প্রস্রাবের হার বেড়ে যায়। যে কারণে একবারে ঠিকভাবে প্রস্রাব বের হয় না। তাই বার বার প্রস্রাবের সমস্যা দেখা দিলে দ্রুত চিকিৎসকের পরামর্শ নিন।

বমি বমি ভাব
আপনার কি কোনো কারণ ছাড়াই বমি বমি লাগে? এরকমটা হলে সতর্ক হোন। কারণ কিডনি বিকল হয়ে গেলে তখন শরীর থেকে সব টক্সিন বা ক্ষতিকর পদার্থ প্রস্রাবের সঙ্গে বের হতে পারে না। কিডনির সমস্যার কারণে শরীরেই সেই ক্ষতিকর পদার্থগুলো জমা হতে থাকে। সেখান থেকেই দেখা দিতে পারে বমি বমি ভাব।

হঠাৎ ওজন কমে যাওয়া
হঠাৎ করেই যদি ওজন অনেকটা কমে যায় তবে হতে পারে তা কিডনি নষ্ট হওয়ার অন্যতম লক্ষণ। কারণ কিডনি ধীরে ধীরে খারাপ হতে শুরু করলে শরীরের ওজনও একই অনুপাতে কমতে থাকে। তাই এ ধরনের লক্ষণ দেখা দিলে উদাসীন না থেকে গুরুত্বের সঙ্গে দেখুন। দ্রুত বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিন।

পা ফুলে যাওয়া
কিডনির সমস্যা দেখা দিলে তার লক্ষণ ফুটে ওঠে পায়েও। কারণ তখন পা ফুলে যায়। এতে শরীরে সোডিয়াম জমতে শুরু করে।
এই সমস্যা বেশি দেখা যায় ডায়াবেটিস রোগীদের ক্ষেত্রে। তাই পা ফোলার সমস্যা দেখা দিলে দ্রুত চিকিৎসকের পরামর্শ নিন। এছাড়াও যদি সারাক্ষণ মাথা ব্যথা লেগে থাকে, ঘুম কমে যায়, শরীরের বিভিন্ন অংশে চুলকানি দেখা দেয় তবে সতর্ক হোন। কারণ এগুলোও জানাতে পারে আপনার কিডনি নষ্ট হওয়ার সংকেত।

কিডনি রোগ কাদের হওয়ার ঝুঁকি আছে?
অনিয়ন্ত্রিত ও দীর্ঘদিনের ডায়াবেটিস বা উচ্চ রক্তচাপ, কিডনির প্রদাহ (যার কারণে প্রস্রাবের সঙ্গে আমিষ নিঃসৃত হয়) কিংবা মূত্রপ্রবাহে বাধা সৃষ্টিকারী কোনো সমস্যা থাকলে কিডনির রোগ হতে পারে। জন্মগত কিছু সমস্যার কারণেও এ রোগ দেখা দেয়।

একজন সুস্থ ব্যক্তির হঠাৎ প্রচণ্ড বমি বা পাতলা পায়খানা হলে কিডনি ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে। যদি তিনি বমি বা পায়খানার সঙ্গে বেরিয়ে যাওয়া পানি ও লবণের প্রতিস্থাপন না করেন। প্রায়ই যারা ব্যথার ওষুধ সেবন করেন, তাদেরও কিডনির সমস্যা হতে পারে। অতিরিক্ত আমিষজাতীয় খাবার গ্রহণের কারণেও কিডনি ক্ষতিগ্রস্ত হতে পারে।

শরীর থেকে অনেক বেশি প্রোটিন বেরিয়ে যাওয়ার কারণে কিডনিতে প্রোটিন চলে যায়। আর প্রোটিন শরীরে পেশি তৈরি ও রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণ করে। এক্ষেত্রে রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণ করা যায় না। ফলে রোগীর পায়ে পানি জমে ও প্রেশার বেড়ে যেতে পারে।

কারণ শরীরে অ্যালবুমিন কমতে থাকে ও প্রেশারও বাড়তে থাকে। এতে রোগী খুব অসুস্থ হয়ে পড়েন। এ বিষয়ে জাতীয় কিডনি ইনস্টিটিউটের রেজিস্ট্রার ডা. হাসিনাতুল জান্নাত বলেন, ‘অ্যালবুমিন একটি অপরিহার্য প্রোটিন উপাদান। যা টিস্যু বা কলাগুলোর স্বাস্থ্যকে বজায় রাখে।’

‘রক্তক্ষরণকে প্রতিরোধ করে ও এটি শরীরের মধ্যে তরল, রক্ত ও অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ টিস্যুর স্বাস্থ্যকে বজায় রাখার জন্য সঞ্চালিত হয়। অনেকেই শুধু শরীর ফোলাকে কিডনি রোগ বা কিডনি নষ্ট হওয়া বোঝেন। তবে আরও কিছু লক্ষণ আছে কিডনি নষ্ট হওয়ার।’

কিডনির রোগের চিকিৎসা দীর্ঘমেয়াদি হয়ে থাকে। সাধারণত দেখা যায়, চিকিৎসায় ৩০-৫০ ভাগ রোগী ভালো থাকেন। অনেকেই চিকিৎসা না নিলে কিডনিই নষ্ট হয়ে যায়।


এই বিভাগের আরো খবর