রাজশাহীতে কলেজছাত্রীর আত্মহত্যা

সারাবাংলা

রাজশাহী ব্যুরো : রাজশাহী মহানগরীতে গলায় ফাঁস দিয়ে ফাতেমা খাতুন (২৩) নামের এক কলেজ ছাত্রী আত্মহত্যা করেছেন। তিনি নগরীর পাঠানপাড়া এলাকার একটি মেসে থাকতেন ও রাজশাহী নিউডিগ্রী কলেজের অনার্স ২য় বর্ষের ছাত্রী। নগরীর একটি কিন্টারগার্টেন স্কুলে সহকারী শিক্ষক হিসেবে শিক্ষকতা করতেন। তার বাড়ি চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলার গোমস্তাপুর থানার রহনপুরের কাশেমপুর গ্রামে। তিনি ওই গ্রামের আতাউরের মেয়ে। ময়নাতদন্ত শেষে লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।
জানা যায়, রোববার রাত ৮টার দিকে কলেজ ছাত্রী ফাতেমা নগরীর পাঠানপাড়া এলাকার নিজ মেসে থাকাকালীন সময়ে মেয়ের অন্যান্য মেয়েরা তার সাড়া শব্দ না পেয়ে ডাকাডাকি করে। এতেও সাড়া দিলে ঘরের মধ্যে গিয়ে তাকে গলায় ফাঁস দেয়া অবস্থায় দেখতে পায়। এ সময় মেসের অন্য মেয়েরা তার সহকর্মীকে খবর দিলে তারা ঘটনাস্থলে গিয়ে তাকে উদ্ধার করে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যায়। হাসপাতালের জরুরী বিভাগে নেয়া হলে সেখানকার কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। পরে নিহতের লাশ হাসপাতালের মর্গে রাখা হয়। সোমবার ময়নাতদন্ত শেষে নিহতের লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়।
এ বিষয়ে নগরীর বোয়ালিয়া মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ ওসি নিবারণ চন্দ্র বর্মন বলেন, ময়নাতদন্ত শেষে লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। এটি আত্মহত্যা নাকি অন্যকিছু তা তদন্ত করা হচ্ছে। আইন অনুযায়ী পরবর্তী ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *