সেবাদানে মানুষের ভরসার স্থল

সারাবাংলা

কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি:
কুড়িগ্রামে স্বাস্থ্যসেবায় ব্যাপক প্রশংসা অর্জন করেছে পল্লী স্বাস্থ্যসেবা। ব্যক্তি উদ্যোগে গড়ে ওঠা এ সেবা কেন্দ্রটি গত দুই বছরে সেবাদানে সাধারণ মানুষের মনে স্থান করে নিয়েছে। করোনাভাইরাসের মহামারিতেও সরকারের দেওয়া সব বিধি নিষেধ মেনে তাদের স্বাস্থ্যসেবা চলমান রয়েছে। জানা যায়, কুড়িগ্রাম জেলা শহরের খলিলগঞ্জ বাজার এলাকায় পানি উন্নয়ন বোর্ড সংলগ্ল স্থানীয় শহিদুল ইসলাম শিমুল অক্লান্তিক প্রচেষ্টায় গড়ে তোলে পল্লী স্বাস্থ্য সেবা কেন্দ্র। যার রেজি: নং ৩৯৯। প্রতিষ্ঠিত হওয়ার গত দুই বছরেই সুনামের সঙ্গে সেবাদান কার্যক্রম চালিয়ে সাধারণ মানুষের মধ্যে স্থান করে নিয়ে ব্যাপক প্রশংসা পেয়েছে। সাধারণের উৎসাহে বর্তমানে সেবা কেন্দ্রটি জেলার ৭২টি ইউনিয়নে শাখা কেন্দ্র খোলার উদ্যোগ গ্রহণ করেছে প্রতিষ্ঠানটির পরিচালক মো: শহিদুল ইসলাম শিমুল সহ সংশ্লিষ্টরা। করোনা ভাইরাসের ১ম ও ২য় মহামারিতে সেবা কেন্দ্রটি সরকারের সকল বিধি নিষেধ মেনে চিকিৎসা সেবা, সংক্রমণ রোধে প্রচারণামূলক লিফলেট, মাস্ক ও ত্রাণ বিতরণ করেছে। এ ছাড়া সেবা কেন্দ্রটি জেলায় সল্প পরিসরে হলেও অনেক মানুষের কর্মসংস্থানের সৃষ্টি করেছে।
পল্লী স্বাস্থ্য সেবা কেন্দ্রের সেবার ধরণ- স্বাস্থ্য সেবা কেন্দ্রটির নিজস্ব কিছু সেবিকা শহর ও গ্রামঘুরে দরিদ্র মানুষদের চিকিৎসা সেবা তাদের কাছে পৌঁছে দিতে পল্লী স্বাস্থ্য সেবা কেন্দ্রের একজন গ্রহিতা হিসেবে যোগদান করেন। ৬ মাস মেয়াদী একটি কার্ডের মাধ্যমে চিকিৎসক দেখানো, পরামর্শ, প্রয়োজনীয় পরীক্ষা-নিরীক্ষার ব্যবস্থা করা সহ ওষুধের প্রিসক্রিপশন করে দেওয়া হয়। সপ্তাহে সরকারি ছুটি ব্যতিত সবদিনই খোলা থাকে। সেবা গ্রহিতা মমিনুল, মজিরণ, শেফালী, কেয়া, জামিউল সহ অনেকেই জানান, পল্লী স্বাস্থ্য সেবা কেন্দ্রের চিকিৎসা নেওয়া অনেক সুবিধা। যে কোনো সময় গেলে সেখানে চিকিৎসক পাওয়া যায়। তাদের সেবার মানে প্রতিষ্ঠানটি প্রশংসার দাবিদার। প্রতিষ্ঠানের পরিচালক শহিদুল ইসলাম শিমুল বলেন, পল্লী স্বাস্থ্যসেবার কেন্দ্রটির কার্যক্রম আরও বেগবান করার লক্ষ্যে সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন দপ্তর সহ সকলের সহযোগিতা একান্ত ভাবে কামনা করছি। বর্তমানে ব্যাপক সাড়া পাওয়ায় জেলার ৭২টি ইউনিয়নে শাখা স্থাপনের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। কুড়িগ্রাম সিভিল সার্জন ডা. মো. হাবিবুর রহমান প্রতিষ্ঠানের কার্যক্রম ও সেবাদানের কাগজপত্র দেখে ধন্যবাদ জানান এবং শাখা স্থাপনের বিষয়ে তিনি সহযোগিতা করার আশ্বাস দেন।

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *