সোনাইমুড়ীতে সম্পত্তি উদ্ধার দাবিতে মানববন্ধন

সারাবাংলা

সোনাইমুড়ী (নোয়াখালী) প্রতিনিধি : নোয়াখালীর সোনাইমুড়ী উপজেলায় ড্রেজিং মেশিন দিয়ে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করায় ৩২ পরিবারের বাড়ি-ঘর হুমকির সম্মুখীন হওয়ায় ও সম্পত্তি উদ্ধার দাবিতে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করা হয়েছে। শনিবার বেলা ১১টায় উপজেলার বজরা ইউনিয়নের বদরপুর গ্রামের পাটোয়ারী বাড়ীর সামনে এই মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করা হয়।

উপজেলার বদরপুর গ্রামের ভুক্তভোগী সায়েদুল হক (৯৯), এমাম হোসেন (৫০), ও শারিরীক প্রতিবন্ধী তোফাজ্জল হোসেন মাকসুদ জানান, উপজেলার বজরা ইউনিয়নের বদরপুর গ্রামের তাদের ওয়ারীশি সম্পত্তি ১৯৬০ সালে ভুলবসত ৯.৩০ একর সরকারের নামে ভুলবশত রেকর্ড হয়। ১৯৬৪ সনে উক্ত মালিকগণ নিজ নিজ নামে নামজারি ও ১৯৮৪ সন পর্যন্ত নিজ নিজ নামে ভূমি উন্নয়ন কর পরিশোধ করে আসছেন। ইতিপূর্বে এ সম্পত্তির ২ একর ৫০ ডিং সম্পত্তি উপজেলা প্রশাসন জোর পূর্বক তাদের দখল উচ্ছেদ করে বঙ্গবন্ধু ভিলেজ করার উদ্যোগ নেয়। এ সম্পত্তিতে বদরপুর গ্রামের ভূঁইয়া বাড়ী ও পাটোয়ারী বাড়ীর ৩২ পরিবারের বসতবাড়ী সংলগ্ন গর্ত করে বেআইনি ভাবে ড্রেজার মেশিন দিয়ে বালু উত্তোলন করছে। এতে সেখানকার জনবসতী ও বিপুল পরিমান আবাদী জমিন ধসে পড়ার আশংঙ্কা রয়েছে। ভুক্তভোগী আব্দুর জাহের ভূঁইয়া (৬০) জানান, তার খরিদা সম্পত্তি থেকে জোর পূর্বক বিভিন্ন প্রজাতির প্রায় ৪টি গাছ কর্তন করে বঙ্গবন্ধু ভিলেজের রাস্তা নির্মাণ করে। সে বাধা দিলে তাকে বেধম মারধর করে উপজেলা প্রশাসনের লালিত লোকজন। এ নিয়ে বদরপুর গ্রামের মৃত গনু মিয়ার পুত্র সায়েদুল হকসহ ভুক্তভোগী প্রায় শতাধিক লোকজন বাদী হয়ে স্বত্ত ঘোষণার মোকদ্দমার দেওয়ানী মামলা নং-১২/২১ ইং যুগ্ন জেলা জজ ২য় আদালত নোয়াখালীতে জেলা প্রশাসক (ডিসি) কে ১ নং বিবাদী করে ৪ জনকে বিবাদী করে মামলা করেছেন। ভুক্তভোগীরা মানববন্ধনে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করায় হুমকির সম্মুখীনের আশংঙ্কায় ও তাদের সম্পত্তি উদ্ধার করার দাবীতে প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করেন।

দেশবিদেশের গুরুত্বপূর্ণ সব সংবাদ পেতে আমাদের ফেসবুক পেইজে লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *