‘স্বাধীনতার ইতিহাস বিকৃতিই হচ্ছে বিএনপির গণতন্ত্র’

রাজনীতি

অনলাইন ডেস্ক : আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, স্বাধীনতার ইতিহাস বিকৃতিই হচ্ছে বিএনপির গণতন্ত্র। তিনি বলেন, ‘বিএনপির বহুদলীয় গণতন্ত্রের আরেক রূপ ছিল হ্যাঁ-না ভোট। স্বাধীনতার ইতিহাস বিকৃতিই হচ্ছে বিএনপির গণতন্ত্র। রাজপথ আর আন্দোলন বিএনপির এখন অজানা। বিএনপির বহুদলীয় গণতন্ত্র ছিল রাতের বেলায় কারফিউ গণতন্ত্র।’
৭ নভেম্বর উপলক্ষে বিএনপি নেতাদের মিথ্যা ও সরকারের বিরুদ্ধে অশালীন বক্তব্যের প্রিিতবাদে আজ রোববার সকালে সরকারি বাসভবনে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন ওবায়দুল কাদের।
আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘বিএনপির বিরুদ্ধে কথা বলতে না চাইলেও তারা বাধ্য করে বলতে, তারা কল্পিত বানানো অভিযোগ করলে দলের সাধারণ সম্পাদক হিসেবে জবাব তো দিতেই হবে। রাজপথ আর আন্দোলন বিএনপির এখন অজানা।’
বিএনপি মহাসচিব বলেছেন, তথাকথিত বিপ্লব ও সংহতির মাধ্যমে ৭ নভেম্বর না কি দেশ দ্বিতীয়বারের মতো স্বাধীন হয়েছিল,” – এর জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, তিনি ঠিকই বলেছেন, ৩ থেকে ৭ই নভেম্বরর মধ্যে জাতীয় চার নেতাসহ দেশপ্রেমিক মুক্তিযোদ্ধা সেনাকর্মকর্তা ও সিপাহি হত্যার মাধ্যমে একজন জেনারেলের ক্ষমতা দখলের স্বপ্ন বাস্তবায়ন তাদের কাছে দ্বিতীয়বারের মতো স্বাধীনতা মনে হওয়াই স্বাভাবিক।
তিনি বলেন, এর আগে ৭১ এর পরাজিত শক্তি পরাজয়ের প্রতিশোধ নিতে ঘটিয়েছিলো ৭৫’র ১৫ আগস্টের হত্যাকা-, সেদিনটিকে বিএনপি মনে করেন প্রথমবারের স্বাধীনতা।
আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, ২০০৪ সালের ২১ আগস্ট শেখ হাসিনাকে হত্যা করা সম্ভব হলে বিএনপি নেতারা বলতো ৩য় বারের মতো স্বাধীন হয়েছে দেশ। দেশের জনগণ বিশ্বাস এবং মনে করেন প্রকৃতপক্ষে ৭ নভেম্বর হচ্ছে মুক্তিযোদ্ধা ও গনতন্ত্র হত্যা দিবস।
জিয়াউর রহমান বহুদলীয় গণতন্ত্রের প্রবর্তক বিএনপি নেতাদের এমন বক্তব্যের জবাবে ওবায়দুল কাদের বলেন, কোন সে গণতন্ত্র? বিএনপির বহুদলীয় গণতন্ত্র ছিলো রাতের বেলায় কারফিউ গণতন্ত্র।
বেগম খালেদা জিয়ার মামলার বিষয়ে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, তাঁর বিরুদ্ধে আওয়ামী লীগ কোন মামলা দেয়নি,তাঁর বিরুদ্ধে সকল মামলা তত্বাবধায়ক সরকারের করা।

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *