হিমন্ত শর্মাকে পররাষ্ট্রমন্ত্রীর অভিনন্দন

জাতীয়

কূটনৈতিক প্রতিবেদক :

ভারতের আসামে নবনির্বাচিত মুখ্যমন্ত্রী বিজেপি নেতা হিমন্ত বিশ্ব শর্মাকে অভিনন্দন জানিয়েছেন বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আবদুল মোমেন।
শনিবার (১৫ মে) সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম টুইটারে এক বার্তায় হিমন্তকে শুভেচ্ছা জানান পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের টুইটার পেজ থেকে জানানো হয়, শুভেচ্ছা বার্তায় মোমেন আশা প্রকাশ করেন, হিমন্তের নেতৃত্বে ভারতের উত্তর-পূর্ব সীমান্তের সঙ্গে বাংলাদেশের বাণিজ্যসহ অন্য সম্পর্কের উন্নতি হবে। পররাষ্ট্রমন্ত্রীর এই টুইটের জবাবে আসামের নতুন মুখ্যমন্ত্রী ফিরতি শুভেচ্ছা ও কৃতজ্ঞতা জানান। এর আগে হিমন্তকে শুভেচ্ছা জানিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ওই শুভেচ্ছা বার্তায় প্রধানমন্ত্রী আসামের নতুন মুখ্যমন্ত্রীকে রাজনীতির বদলে অর্থনীতির স্রোতে শামিল হওয়ার আহ্বান জানান। প্রধানমন্ত্রী লেখেন, তিনি চান আসাম ও বাংলাদেশের মধ্যে কূটনীতির ভাষাটা অর্থনীতিই ঠিক করে দিক, রাজনীতি নয়।

ফিরতি টুইটারে হিমন্ত লেখেন, ‘মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার শুভ কামনাকে আমি অত্যন্ত মূল্য দিই ও সম্মান করি। আমাদের প্রধানমন্ত্রী শ্রী নরেন্দ্র মোদি সম্প্রতি বাংলাদেশে গিয়ে বলেছিলেন, ভারত ও বাংলাদেশ একই সঙ্গে পা মিলিয়ে অগ্রযাত্রায় চলুক…আসাম তার সেই দৃষ্টিভঙ্গির প্রতি অঙ্গীকারবদ্ধ।’ তিনি আরও বলেন, ‘আমরা (বাংলাদেশ ও আসাম) নিশ্চিতভাবেই পরস্পরের দ্বারা লাভবান হতে থাকব।’

ভারতের আসাম রাজ্যের নতুন মুখমন্ত্রী হয়েছেন সেখানকার বিজেপিনেতা হিমন্ত বিশ্ব শর্মা। আসামের ১৫তম মুখ্যমন্ত্রী হলেন তিনি। হিমন্ত বিশ্ব শর্মা একই দলের সর্বানন্দ সনোয়ালেরও উত্তরাধিকারী হয়েছেন।
প্রসঙ্গত, বাংলাদেশ নিয়ে নানা বিতর্কিত মন্তব্য করে ইতোপূর্বে একাধিক বার শিরোনাম হয়েছিলেন হিমন্ত। আসামের তথাকথিত অবৈধ অভিবাসীদের (মুসলিম) বাংলাদেশে পাঠানোর জন্য যে নামের তালিকা করা হয়, সেটির নেতৃত্বে ছিলেন হিমন্ত বিশ্ব শর্মা। ২০২১ সালের ফেব্রুয়ারিতে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে তিনি দাবি করেন, ‘বাংলাদেশ থেকে সেখানে যাওয়া অভিবাসী মুসলিম জনগোষ্ঠী’র একটি অংশ সাম্প্রদায়িক। তারা স্থানীয় ভাষা ও সংস্কৃতি বিনষ্টকারী কার্যকলাপের সঙ্গে যুক্ত।

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *