১৪ দিন পর বাসায় ফিরলেন কাজী হায়াৎ

বিনোদন

ডেস্ক রিপোর্ট: টানা ১৪ দিন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন থাকার পর অবশেষে করোনামুক্ত হলেন দেশের খ্যাতিমান চলচ্চিত্র নির্মাতা কাজী হায়াৎ। শনিবার তার করোনা পরীক্ষার রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে। আজ রবিবার বেলা ১১টার দিকে তাকে হাসপাতাল থেকে বাসায়ও নিয়ে যাওয়া হয়েছে।

এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন নির্মাতা কাজী হায়াতের একমাত্র ছেলে অভিনেতা কাজী মারুফ। তিনি বলেন, ‘আব্বার করোনা রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে, আলহামদুলিল্লাহ্‌। হাসপাতাল থেকে ছাড়পত্র পেয়ে বাবাকে বাসায় নিয়ে এসেছি। সকলের দোয়া ও সহযোগিতার কারণে আব্বাকে নিয়ে বাসায় ফিরতে পেরেছি। আল্লাহর কাছে শুকরিয়া এবং সবার কাছে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি।’

অভিনেতা আরও জানান, ‘আব্বার করোনা রিপোর্ট নেগেটিভ ও অক্সিজেন লেভেল স্বাভাবিক হয়েছে, তবে এখনো তিনি পুরোপুরি সুস্থ নন। করোনা পরবর্তী সময়টা বেশ ঝুঁকিপূর্ণ। তাই কয়েকটা দিন ওনাকে সম্পূর্ণ বিশ্রামে থাকাতে বলেছেন চিকিৎসকরা। সবাই আব্বার জন্য দোয়া করবেন। ’

গত ১০ মার্চ স্ত্রীসহ করোনায় আক্রান্ত হন বরেণ্য নির্মাতা কাজী হায়াৎ। কয়েকদিন বাসায় চিকিৎসা নিয়ে গত ১৫ মার্চ তারা একসঙ্গে ধানমন্ডির একটি হাসপাতালে ভর্তি হন। সেখানে কাজী হায়াতের শারীরিক অবস্থার অবনতি ঘটলে গত ২২ মার্চ তাকে আইসিইউতে নেওয়া হয়। আইসিইউতে দুদিন চিকিৎসার পর অবস্থা ভালো হওয়ায় আবার তাকে কেবিনে আনা হয়। এবার করোনামুক্ত হয়ে ফিরলেন বাসায়।

গত ২ মার্চ করোনাভাইরাসের টিকা নেন নির্মাতা কাজী হায়াৎ। এরপর ৫ মার্চ থেকে তিনি জ্বর জ্বর অনুভব করেন। বাসা ও বাইরে যথেষ্ট সতর্ক ছিলেন বহু সুপারহিট ছবির এই পরিচালক। কিন্তু শেষ রক্ষা হয়নি। জ্বর নিয়ে নমুনা পরীক্ষা করালে তার করোনা রিপোর্ট পজিটিভ আসে। এরপর তার স্ত্রী পরীক্ষা করালে সেই রিপোর্টও পজিটিভ আসে।

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *