দশমিনায় কৃষকের মানববন্ধন

সারাবাংলা

দশমিনা (পটুয়াখালী) প্রতিনিধি:
দশমিনা উপজেলার বেতাগী সানকিপুর ইউনিয়নে গ্রীন বাংলা কোম্পনীর কীটনাশক ব্যবহারে দুই শতাধিক একর জমির মুগডাল ক্ষেতের ফসল নষ্ট হওয়ার অভিযোগে মানববন্ধন করেছেন ওই এলাকার কৃষকরা। এসময় তারা গ্রীন বাংলা কোম্পানীর কীটনাশক পরিবেশক আরিফ হোসেনের বিচার ও ক্ষতিপূরন দাবি করেন। গতকাল মঙ্গলবার দশমিনা উপজেলা কৃষি অফিসের সামনে ঘণ্টাব্যাপি মানববন্ধনে বেতাগী সানকিপুর এলাকার শতাধিক কৃষক তাদের ক্ষেতের মুগ ডাল গাছ হাতে নিয়ে অংশ নেন। বেতাগী এলাকার কৃষক ছালাম তালুকদারের ছেলে রফিক তালুকদার (৪৫) জানান, তিনি দের একর জমিতে মুগ ডাল লাগিয়েছেন তার মুগ ডাল ক্ষেতে গ্রীন বাংলা কোম্পানীর কীটনাশক ব্যবহার করায় ক্ষেতের মুগ ডাল গাছে কোন ডাল জন্মায়নি। ঠাকুরের হাট এলাকার কৃষক কাদের গাজীর ছেলে কালাম গাজী (৭০) জানান, তিনি দুই একর জমির মুগ ডাল ক্ষেতে গ্রীন বাংলা কোম্পানীর কীটনাশক ব্যাবহার করায় তার ক্ষেতেও কোন ডাল জন্মায়নি। ওই এলাকার শতাধিক কৃষক প্রায় একই রকম অভিযোগ করেন। গ্রীন বাংলা কোম্পানীর বেতাগী এলাকার কীটনাশক বিক্রেতা সুমন কবিরাজ জানান, গ্রীন বাংলা কোম্পানীর অনুরোধে তিনি যে কীটনাশক কৃষকদের কাছে বিক্রি করেছেন তাদের কারো জমিতেই মুগ ডাল জন্মায়নি। এঘটনায় স্থানীয় চাষীদের প্রায় কোটি টাকার ফসল হানি হয়েছে বলে দাবী করেন তিনি। উপজেলা কৃষি অফিসার জাফর আহমেদ জানান, দুদিন আগেই স্থানীয় কৃষকেরা আমার কাছে লিখিত আবেদন করেছিলেন ওই আবেদনের প্রেক্ষিতে কৃষকদের কি পরিমান ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে সেটা নিরুপনের জন্য একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। এব্যাপারে অভিযুক্ত গ্রীন বাংলা কোম্পানীর কীটনাশক পরিবেশক আরিফ হোসেন জানান, কোম্পানীর নির্দেশনা অনুযায়ী অসুধ ব্যবহার না করায় ফসল হানির ঘটনা ঘটেছে এব্যাপারে কোম্পনী কোন ভাবেই দায়ী নয়।

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published. Required fields are marked *